চট্টগ্রামে সন্দ্বীপের মগধারা ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) সাবেক সদস্যকে গুলি করে হত্যা মামলায় সাবেক চেয়ারম্যানসহ ১১ জনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত।

বিভাগীয় দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালের বিচারক একেএম মোজাম্মেল হক চৌধুরী বৃহস্পতিবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে এ রায় দেন।

দণ্ডিতরা হলেন সন্দ্বীপের মগধারা ইউপি সাবেক চেয়ারম্যান মাকসুদুর রহমান শাহীন, জামাল উদ্দিন, মো. রহমান, আহছান উল্লাহ, আবদুর রহমান, আলতাফ হোসেন, মো. মেহরাজ, মো. মান্নান, মো. আশরাফ, মো. ফারুক, ফুল মিয়া।

রায় ঘোষণার সময় নয়জন আসামি উপস্থিত ছিলেন। আবদুর রহমান ও মো. আশরাফ পলাতক।

ট্রাইব্যুনালের রাষ্ট্রপক্ষের বিশেষ আইনজীবী আইয়ুব খান বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

তিনি জানান, ২০১৫ সালের ৩১ জুলাই মগধারা ইউপি সদস্য মনিরুল আলমকে ওই ইউনিয়নের জেলেপাড়া এলাকায় গুলি করে হত্যা করা হয়। এ ঘটনায় মনিরুলের ভাই রবিউল আলম ২২ জনকে আসামি করে হত্যা মামলা করেন।

২০১৬ সালের ২৯ ফেব্রুয়ারি পুলিশ ১১ জনকে অভিযুক্ত করে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেয়।

আদালত ১১ জনের সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে ও আসামিদের জবানবন্দিতে এই রায় দেয়। যাবজ্জীবনের সঙ্গে প্রত্যেককে ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও ১ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত।